Thursday, August 6, 2015

জেনে নিন ফ্রিল্যান্সিং বা আউটসোর্সিং কি ও এর ক্যারিয়ার ! আপনাকে দিয়েই হবে ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং ।

বাংলাদেশ ধীরে ধীরে প্রযুক্তির দিক দিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে। তাই দিনে দিনে ফ্রিল্যান্সিং এর চাহিদা বাড়ছে।

আজ আমি আপনাদের সাথে ফ্রিল্যান্সিং বা আউটসোর্সিং কি এবং এর ক্যারিয়ার নিয়ে আলোচনা করব

outsourcing


ফ্রিল্যান্সিং বা আউটসোর্সিং কি -
ফ্রিলান্সিং কথার অর্থ হল মুক্ত বা স্বাধীন পেশা। আর আউটসোর্সিং মানে হল অন্য কারো কাজ করা।
অর্থ এর দিক বিবেচনা করলে দুইটা ভিন্ন। কিন্তু কাজের দিক থেকে একই।
ফ্রিল্যান্সিং নিজের ইচ্ছা মত স্বাধীন ভাবে করা জায়। কারো অধীনে কাজ করাকে ফ্রিলান্সিং বলা যাবে না।
আর আউটসোর্সিং ফ্রি টাইমে চুক্তি ভিত্তিতে কারো কাজ করা।
এটা অনলাইনের করা যায় আবার অফলাইনেও করা জায়। অনলাইনেই বেশি করা হয় কারন অনলাইনে করে বেশি টাকা আয় করা যায়।
আর জারা এই কাজ গুলা করে তাদের বলা হয় ফ্রিল্যান্সার।
ক্লাইন্ট আপনাকে কাজ দিবে আর আপনি এটা করে দিবেন। যেখানে থাকবে নির্দিষ্ট কিছু  শর্ত। এটাই ফ্রিলান্সিং।

এটা করে কি সত্যিই টাকা আয় করা যায়? -
যারা এই বিষয়ে নতুন বা যারা জানেন না তাদের সবার মনেই একটা প্রশ্ন জাগে যে,

ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং করে কি সত্যিই টাকা আয় করা যায়?

হ্যা। অবশ্যই আয় করা যায়। যার জন্য দরকার ভালভাবে কাজ শেখা। আর ভাল গাইডলাইন।

বাংলাদেশে অনেক অসাধু ও ভন্ড লোক আছে যারা মানুষকে নানা ধরনের মিথ্যা প্রলভন দেখিয়ে বা রাতা রাতি বড়লোক হওয়ার অনেক বিজ্ঞাপন দেখিয়ে ফ্রিলান্সিং শেখানোর নামে মানুষের হাজার হাজার টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। যার জন্য অনেকেই এটাতে ব্যার্থ হয়ে থাকে। এদের থেকে সাবধান থাকুন।

  এটা করতে হলে কি কাজ শেখা লাগবে -
যেকোন কাজ করেই ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং  করা যায়। তবে অনলাইনেই যে সব কাজ বেশি পাওয়া যায় সেগুলো হল-
ওয়েব ডেভেলপমেন্ট, গ্রাফিক্স ডিজাইন, ফটোশপ, সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্ট, নেটওয়ার্কিং ও তথ্যব্যবস্থা (ইনফরমেশন সিস্টেম), লেখা ও অনুবাদ, প্রশাসনিক সহায়তা, ডিজাইন ও মাল্টিমিডিয়া, এসইও, গ্রাহকসেবা (Customer Service), বিক্রয় ও বিপণন,
ব্যবসাসেবা ইত্যাদি। এছাড়াও আরও অনেক কাজ পাওয়া যায়।
সব কাজ যে শিখতে হবে এমন কথা নেই। একটা ভালভাবে শিখলেই হবে।

কোথায় করতে হয় এই সব কাজ? -
ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং এর কাজ আপনি ঘরে বসেই অনলাইনে বিভিন্ন মার্কেটপ্লেসে করতে পারবেন। অনেক মার্কেটপ্লেসে আছে। আর এখানে অনেক কাজ পাওয়া যায়।
কিছু মার্কেটপ্লেসে এর নাম হল Upwork, Freelancer, Belancer, Microworks, Fiverr
আরও অনেক মার্কেটপ্লেসে আছে।

ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং ক্যারিয়ার -
লেখা পড়া বা অন্য কোন জবের পাশাপাশি ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং করে টাকা আয় করা যায়। এটা শিখতে হলে আপনাকে ভাল লেখাপড়া জানাও হতে হবে না।
এটাতে যদি নিজেকে আপনি ভাল ভাবে জড়িয়ে ফেলতে পারেন তাহলে আপনি মাসে ৫০০০০ থেকে ১০০০০০ টাকার মত আয় করতে পারবেন।
তবে অপ্রাথমিক পযায়ে আপনি ১০০০০ থেকে ৩০০০০ মত আয় করতে পারেন।
সব শেষে বলা যায়, ফ্রিলান্সিং একটি সম্মানজনক পেশা।

আজ আর না। ফ্রিলান্সিং বা আউটসোর্সিং নিয়ে আর কিছু জানার থাকলে কমেন্ট করে জানান।